ষষ্ঠ শ্রেণি: বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয়

বাংলাদেশের সমাজ

ইরা আজ স্কুলে পরীক্ষা দিতে এসে লক্ষ্য করলো তাঁর কলমের কালি শেষ হয়ে গিয়েছে। দেখে তো সে ভয় পেয়ে গেলো। পরীক্ষা দিবে কীভাবে এখন? প্রভা লক্ষ্য করলো ইরা কী নিয়ে জানি বেশ চিন্তায় আছে। সে তখন তাঁকে জিজ্ঞাসা করলো, কী হয়েছে। ইরা তখন তাঁকে সব বললো। প্রভা তখন তাঁর ব্যাগ থেকে একটি কলম বের করে ইরাকে দিলো।

বন্ধুরা, উপরের গল্পে আমরা ছোট্ট একটি ঘটনা দেখতে পেলাম। কিন্তু এটিকে যদি আমাদের সমাজের সাথে তুলনা করি তাহলে দেখবো, কীভাবে সমাজে বসবাস করে মানুষ সহযোগিতার মনোভাব তৈরি করে ফেলে। মানুষ পরস্পরের সাথে মিলেমিশে থাকতে পছন্দ করে। সমাজে বাস করতে হলে সকলকেই সহযোগিতা এবং একত্রে কাজ করার মানসিকতায় থাকতে হয়। এভাবেই মানুষ সমাজে বাস করে থাকে। বন্ধুরা, চলো বাংলাদেশের সমাজ নিয়ে আজ বিস্তারিত জেনে আসা যাক।

সমাজ জীবনে প্রাকৃতিক ও ভৌগােলিক পরিবেশের প্রভাব

সমাজ বিকাশের বিভিন্ন স্তর শিকার ও খাদ্যসংগ্রহ, উদ্যানকৃষি ও পশুপালন সমাজ


সমাজ বিকাশের বিভিন্ন কৃষি, শিল্প ও শিল্পবিপ্লব পরবর্তী সমাজ


বাংলাদেশের সমাজের প্রকৃতি

কুমিল্লার লালমাই, নরসিংদীর উয়ারী-বটেশ্বর, চট্টগ্রাম ও সিলেট অঞ্চলে বাঙালির প্রাচীন বসতির নিদর্শন পাওয়া গেছে। বাঙালির এই আদি পুরুষরাই এ অঞ্চলে কৃষির সূচনা করেছিল। তখন কৃষিতে উদ্বৃত্ত ফসল উৎপাদন হতাে। বাংলাদেশের নগরকেন্দ্রিক জনগােষ্ঠী বর্তমানে শিল্পভিত্তিক সমাজ ও শিল্পবিপ্লব-উত্তর সমাজে প্রবেশ করলেও তার পূর্ববর্তী ঐতিহ্যগুলােকেও কিছু কিছু ক্ষেত্রে ধারণ করে আছে। তাই এখনও উদ্যানকৃষি, পশুপালন, কৃষি আমাদের অর্থনীতিতে বড় ভূমিকা রাখছে। যদিও স্বাধীনতা পূর্বকালে পাকিস্তানি শাসকদের অবহেলার কারণে শিল্পের বিকাশ ঘটে নি, কিন্তু স্বাধীনতার পর বাংলাদেশে কৃষি উৎপাদন বহুগুণে বৃদ্ধির পাশাপাশি ব্যাপকভাবে শিল্পের প্রসার ঘটে।

এবার নিচের কুইজটি দিয়ে আসা যাক


বাংলাদেশের সমাজ নিয়ে তোমাদের বিস্তারিত ধারণা হয়ে গেলে এখনই শেয়ার করে নাও এই স্মার্টবুকটি।